1. admin@miarhat.com : admin :
বৃহস্পতিবার, ০৮ জুন ২০২৩, ১২:০০ অপরাহ্ন
সর্বশেষ হেডলাইন
জাতীয় পরিবেশবাদী সংগঠন সবুজ বাংলাদেশ,মাদারীপুর জেলা শাখার বিশ্ব পরিবেশ দিবস ২০২৩ উদযাপন ডাসারে সুদের টাকা পরিশোধ করেও হয়না পরিশোধ! স্টাম্প আটকে পুনরায় টাকা দাবি পূর্ব এনায়েতনগর ইউনিয়ন শাখা কৃষকলীগের সম্মেলন প্রস্তুতি সভা কালকিনিতে ব্লাড ডোনেশন সোসাইটির র‌্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিতঃ মাদারীপুর আড়িয়ালখাঁ নদ থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের প্রতিবাদ করল এলাকাবাসী মাদারীপুরে কুম্ভ মেলা থেকে জুয়ার সরঞ্জামসহ আটক-৭ মিরসরাইয়ে মিয়াপাড়া প্রিমিয়ার লীগ ফুটবল টুর্নামেন্ট চ্যাম্পিয়ন পাওয়ার সার্চ ফুটবল একাদশ কৃষি মন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা ও শুভেচ্ছা স্মারক প্রদান করেন সুপারিশপ্রাপ্ত উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তাগন কালকিনিতে অবৈধ মাহিন্দ্র ট্রাক্টরের ধাক্কায় নিহত এক জন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মাদারীপুর-৩ আসনে সম্ভাব্য এমপি প্রার্থী ম‌নির খান।

বিশ্বাস ও আস্থার নাম আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম

  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ২৩ ডিসেম্বর, ২০২২
  • ১৯৮ বার পঠিত

রাজনীতিতে তিনি বড় তারকা নন। বরং শেখ হাসিনার নিজস্ব সহযোদ্ধা হিসেবেই তার পরিচিতি বেশি।আওয়ামীলীগ সভাপতি শেখ হাসিনা ১৯৮১ যখন এক প্রতিকূল পরিস্থিতিতে দেশে ফেরেন, তখন সুরক্ষার জন্য তার চারপাশে যে বিশ্বস্ত ও আস্থাভাজন কর্মীরা ছিল তাদের মধ্যে অন্যতম আ. ফ. ম. বাহাউদ্দিন নাছিম।বাহাউদ্দিন নাছিম হলেন শেখ হাসিনার একজন নিকট সহযোদ্ধা ও বঙ্গবন্ধুর একজন আর্দশের খাটি সৈনিক।

শেখ হাসিনার চারপাশে যারা থাকতেন তাদের নানা রকম উত্থান পতন হয়েছে। অনেকেই ছিটকে পড়েছেন, কেউ বেশিদিন থাকতে পারেননি।কিন্তু বাহাউদ্দিন নাছিম চলমান, তিনি আছেন।এখন হয়তো তিনি শেখ হাসিনার পার্সোনাল স্টাফ নন। কিন্তু শেখ হাসিনার সঙ্গে তার সম্পর্ক যেমন অটুট আছে তেমনি আওয়ামীলীগে তিনি বিশ্বাস ও আস্থার প্রতীক হয়ে রয়েছেন।
১৯৯৬ সালে দীর্ঘ ২১ বছর পর আওয়ামীলীগ ক্ষমতায় আসে। শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী হন। এই সময়ে বাহাউদ্দিন নাছিম শেখ হাসিনার সহকারী একান্ত সচিব হিসেবে সুনামের সাথে দায়িত্ব পালন করেন।

এরপর ২০০১ সালে বিএনপি জামাত জোট সরকারের তাণ্ডব শুরু হয় সারাদেশে।এই তাণ্ডবে আওয়ামী লীগের যে সমস্ত বিশ্বস্ত এবং আস্থাভাজন নেতারা বিএনপি জামাতের নির্মমতার শিকার হন তাদের মধ্যে বাহাউদ্দিন নাছিম অন্যতম। বাহাউদ্দিন নাছিমকে অমানবিকভাবে নির্যাতন করা হয়।যে পৈচাশিকতা তার সঙ্গে দেখিয়ে ছিল বিএনপি- জামাত জোট, তা গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক ইতিহাসে শুধুমাত্র নিন্দনীয়ই নয়, গর্হিতও বটে।

২০০৪ সালের ২১ আগস্ট বিএনপি-জামায়াত সরকারের আমলে বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে আওয়ামী লীগের সমাবেশে ইতিহাসের নৃশংসতম হত্যাযজ্ঞ চালানো হয়।সেই দদিন গ্রেনেড হামলায় স্প্রিন্টারের আঘাতে মারাত্মক আহত হয়েছিলেন আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম।

২০০৮ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর বাহাউদ্দিন নাছিম আওয়ামী লীগের একজন কর্মী এবং শেখ হাসিনার বিশ্বস্ত ব্যক্তি হিসাবেই নিজেকে বিকশিত করেছেন। এর মধ্যে তিনি আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হয়েছেন, মাদারীপুর ৩ আসনের এমপি হয়েছেন,সেই সময়ে তিনি তার নির্বাচনী এলাকান ব্যাপক উন্নয়ন করেছিলেন।সব সময় জনগণের কাছে ছুটে যেতেন।এখন তিনি মাদারীপুর ৩ আমনের জনগণের কাছে অধিক জনপ্রিয় সংসদ সদস্য। এখন তিনি আওয়ামী লীগের যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন। এসব পরিচয়ের চেয়েও তার সবচেয়ে বড় পরিচয় হলো তিনি বিশ্বস্ত এবং আস্থার প্রতীক। শেখ হাসিনার বিশ্বস্ত কর্মীর তালিকা করলে বাহাউদ্দিন নাছিমের নাম থাকবে উপরের দিকে। শেখ হাসিনার যে কোন সঙ্কট কিংবা দু:সময়ে যারা তার পাশে থাকেবে বলে নিশ্চিত আস্থা রাখা যায়, তাদের মধ্যে বাহাউদ্দিন নাছিম অন্যতম। তিনি কি পেলেন না পেলেন সেটা নিয়ে কখনো ভাবেন না। বরং শেখ হাসিনার একজন বিশ্বস্ত কর্মীর পরিচয়েই নিজেকে পরিচিত করাতে চান।আর তাই যখন রাজনীতিকে গ্রাস করে ফেলেছে অবিশ্বাস, নানা রকম সিন্ডিকেট, দুর্বৃত্তায়ন, দুর্নীতি তখন বাহাউদ্দিন নাছিমের মতো রাজনৈতিক আদর্শে বিশ্বাসী মানুষের রাজনীতিতে আরো বেশি প্রয়োজন বলে মনে করেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

মোঃকাঞ্চন হোসেন,মিয়ারহাট ডট কম।

এ জাতীয় আরও খবর

© All rights reserved © 2022 Miarhat.com

Theme Customized By Miarhat